Below Header Banner Area
Above Article Banner Area

জেলার উন্নয়নের অন্যতম মুখ বিপ্লব মিত্র

দক্ষিন দিনাজপুরঃ দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার তৃণমূল কংগ্রেসের জেলা সভাপতি তথা জেলার উন্নয়নের কান্ডারী বিপ্লব মিত্র সবসময় সকলকে বলেন জেলায় সবাইকে এক সাথে কাজ করতে হবে, কারন আমরা সবাই মা মাটি মানুষ সরকারের জনপ্রতিনিধি, মানুষের পাশে থেকে কাজ করে যেতে হবে। তাই তিনি শুধু একজন রাজনীতিবিদ নন এই জেলার অভিভাবকও বটে। জেলার অভিভাবক হিসেবে সর্বদা তারই সমস্ত দায়িত্ব থাকে। আর তিনি এই দায়িত্ব সামলে রেখেছেন বহুদিন ধরে। তাই এই জেলার মানুষ তাকে উন্নয়নের কাণ্ডারি হিসেবে চেনে। বিগত দিনের দিকে তাকালে দেখা যাবে নানান চড়াই উতরাই পার করে পরম স্নেহে আগলে রেখেছেন দলকে। কত ঘাত প্রতিঘাতের মধ্যে দিয়ে তাঁকে দিনের পর দিন সহ্য করতে হয়েছে নির্যাতন। প্রসঙ্গত, বাম শাসকের জামানায় শক্ত দেওয়ালের মত দলকে আগলে রেখেছেন। তাঁর কথায়, এখন মা মাটি মানুষ সরকার অর্থাৎ আমাদের দলের সরকার। আজকে দলের ভালো দিন।
তিনি তিলে তিলে তৈরি করেছেন এই দলকে এই জেলায়। ২০১১ সালে উত্তরবঙ্গ তিনি  উন্নয়ন পর্ষদের সদস্য ছিলেন। কিন্তু কিছুদিন পর তাঁকে ওই পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু ২০১৮ সালে আবার তিনি দুটি পদ পান। তৃণমূল কংগ্রেসের জেলা সভাপতি এবং উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন পর্ষদের ভাইস চেয়ারম্যান হন তিনি। সততা দলের প্রতি দায়িত্ববোধ সব কিছুর জন্যে এই পদ তারই প্রাপ্য বলে জেলাবাসীর একাংশের অভিমত। সর্বদা শোনা যাই বড় মনের মানুষ তিনি। তাই তো বিশিষ্ট সমাজসেবীদের মধ্যে সবসময় প্রথমে তার নাম থাকে। কিছু বছর আগের গঙ্গারামপুর, বালুরঘাট আজকের গঙ্গারামপুর, বালুরঘাটের ও বুনিয়াদপুরের মধ্যে অনেক পার্থক্য। ঢেলে সাজিয়েছেন তিনি, ঠিক যেমন সবাই নিজের বাড়ী তৈরি করেন। তাই গতানুগতিক ভাবে তার উন্নয়নের ধারায় ঝাঁ চকচকে সারা জেলা।তাই তো বালুরঘাট হাসপাতাল আজ সেরা। অভিভাবক হিসেবে জেলায় তাঁর দায়িত্ব সম্পর্কে তিনি সদা সচেতন। শত-শত মানুষকে তিনি হাত ধরে রাজনীতির ময়দান ও মঞ্চে এনেছেন। তৈরী করছেন মানুষের জন্য কিছু করার। শিখিয়েছেন মানুষের পাশে কিভাবে দাঁড়াতে হয়। তাই আজ এই জেলায় জন্ম নিয়েছে কিছু লড়াকু নেতা। সর্বদা এই লড়াকু নেতাদের কাছে অভিভাবক ও রবীন হুড ন্যায়ে বিরাজ করেন বিপ্লব মিত্র।অভিভাবক হিসেবে এখনও তিনি তার দায়িত্ব পালন করে চলেছেন। বর্তমানে তিনি তাঁর কর্তব্য পরায়নতার জন্য সব আঙ্গিনায় উপস্থিত। ছাত্রনেতা, যুবনেতা সবাই তো এই জেলায় তার আদর্শের অনুপ্রেনায় কাজ করে চলেছে। তাই ইতিহাস বলে দেয় যে বহুদিনের অক্লান্ত পরিশ্রমের ফসল দক্ষিন দিনাজপুর জেলার উন্নয়নের কান্ডারী বিপ্লব মিত্র। তার উন্নয়নের জোয়ারে এখনো ভেসে থাকেন জেলাবাসীরা। তার কাজকে সর্বদা সাধুবাদ জানান জেলার বিভিন্ন মহলের বিশিষ্টরা। বলাই বাহুল্য বিপ্লব মিত্রের উন্নয়নের ধারায় ঝাঁ চকচকে জেলায় বাস করে মানুষেরা যারপরনাই খুশি।

Below Article Banner Area

About Desk

Check Also

JIS Group organizes free of cost vaccination drive for everyone

JIS Group’s free-of-cost onsite vaccination drive has started today at Narula Institute of Technology campus …

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Bottom Banner Area